Home > খেলাধুলা > ‘ওরা ভারত, আমরা বাংলাদেশ- এটাই পার্থক্য’

‘ওরা ভারত, আমরা বাংলাদেশ- এটাই পার্থক্য’

ক্রীড়া প্রতিবেদক : এবারের বিশ্বকাপের অন্যতম ফেবারিট তারা। বিশ্বকাপে ভারত এখন পর্যন্ত একমাত্র অপরাজিত দল। আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচটা ছাড়া অন্য তিন ম্যাচ জিতেছে নিজেদের শক্তির পরিচয় দিয়েই।

পাঁচ ম্যাচের একটিতে পয়েন্ট ভাগাভাগি ও চার জয়ে ৯ পয়েন্ট নিয়ে ভারত অবস্থান করছেন পয়েন্ট টেবিলের তিন নম্বরে। বাকি চার ম্যাচের যেকোনো একটি জিতলেই নিশ্চিত হতে পারে সেমিফাইনাল। দুটি জিতলে তো কথাই নেই।

পক্ষান্তরে বাংলাদেশের সেমিফাইনালের স্বপ্ন ঝুলে আছে চিকন সুতোয়। শীর্ষ চারে থাকতে হলে বাকি দুই ম্যাচে জয়ের বিকল্প নেই। যার প্রথমটি আগামী মঙ্গলবার এজবাস্টনে ভারতের বিপক্ষে। তবে প্রতিপক্ষ নিয়ে ভাবছেন না সৌম্য সরকার। ভারত এগিয়ে আছে, এমন ভাবনাও কেউ মাথায় আনছেন না। জয়ের জন্যই তারা মাঠে নামতে চান।

আজ সাংবাদিকদের সৌম্য বলেছেন, ‘ওরা এগিয়ে আছে আমরা যদি ওই চিন্তা করে নামি তাহলে আমরা আগেই পিছিয়ে যাব। নামতে হবে এভাবে যেন আমরা জেতার জন্য খেলব। আমরা এখনো রেসে আছি। আমরা একটি বড় টুর্নামেন্ট খেলব, এখানে যদি আমরা কাউকে আলাদাভাবে দেখি আমরা শুরুতে পিছিয়ে যাব। ওটা না চিন্তা করে আমরা যেভাবে ক্রিকেট খেলেছি, ওভাবেই যদি আমরা খেলতে পারি তাহলে ওদের সঙ্গে জেতা সম্ভব এবং আমরা জিতব।’

দুই দলের কোনো পার্থক্যও দেখছেন না সৌম্য। অনেকটা মজা করেই বললেন, ‘ওরা ভারত, আমরা বাংলাদেশ। এটাই তো পার্থক্য। মাঠে গিয়ে যেদিন যারা ভালো খেলবে তারাই জিতবে। বড় টুর্নামেন্টে খেলতে গেলে কেউ যদি নাম ধরে খেলতে যান তাহলে ব্যাকফুট থাকতে হবে। এই চিন্তাটা না করে যদি পরিকল্পনা অনুযায়ী খেলতে পারি তাহলেই হবে। ওদের শক্তিশালি দিক ও দুর্বল দিকগুলো নিয়ে পরিকল্পনা করতে হবে। সেই পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করতে পারলে জিততে পারব। আমাদের তিন ফরম্যাটে সেরা ক্রিকেট খেলতে হবে।’

নিজেদের কাজটা ঠিকমতো করার দিকেই দলের সবার পূর্ণ মনোযোগ বলে জানালেন সৌম্য, ‘কে কার সঙ্গে খেলবে, সেটা নিয়ে চিন্তা করে লাভ নেই। ওটাতো আমরা পরিবর্তন করতে পারব না। আমরা আমাদের কাজটা করতে চাই। সেই দিকেই মনোযোগ আমাদের। সামনের ম্যাচ দুটি জিতে আমাদের কাজটা করে রাখতে চাই।’

আফগানিস্তানের বিপক্ষে জয়ের পর চার দিনের ছুটিতে আছেন ক্রিকেটাররা। এমন লম্বা টুর্নামেন্টে বিশ্রামটা দরকার আছে বলেই মনে করেন বাঁহাতি ব্যাটসম্যান, ‘বিশ্রামেরও প্রয়োজন আছে। অনেক লম্বা সফর, বিশ্রাম দরকার আছে। যারে ভালো টাচে আছে, তাদের জন্য বিশ্রাম ঠিক আছে। যেহেতু ছুটি কাটাচ্ছি। আগামী দুই দিন পর অনুশীলন করে নিজের কাজটা সেরে রাখব।’

আপনার ওয়েবসাইট তৈরি করতে ক্লিক করুন........
Ads by জনতার বাণী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

শিরোনামঃ