Home > খেলাধুলা > অচিরেই বড় দল হবে বাংলাদেশ

অচিরেই বড় দল হবে বাংলাদেশ

খেলা প্রতিবেদক
জনতার বাণী,
ঢাকা: বিশ্বকাপ থেকে
বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের
উত্থান। ক্রিকেট মোড়ল
ইংল্যান্ডকে বিদায় করে
কোয়ার্টার ফাইনাল
খেলেছে মাশরাফিরা।
এরপর পাকিস্তান সিরিজ
খেলতে এসে হয়েছে
বাংলাওয়াশ। আরেক মোড়ল
ভারত একটুর জন্য
বাংলাধোলাই থেকে রক্ষা
পেয়েছে। ২-১ ব্যবধানে
তাদের ভাষায়, সিরিজ
হেরে হারিয়েছে দীর্ঘ
ক্রিকেট ইতিহাসের
কৌলিন্য।
এসবের কিছুতেই কী নজর
দেয়নি দক্ষিণ আফ্রিকা। যদি
তারা ক্রিকেট খেলে
থাকেন, তবে অবশ্যই নজর
দেয়ার কথা। কারণ ভারতের
ঠিক পরেই এবি ডি
ভিলিয়ার্সরা পূর্ণাঙ্গ
সিরিজ খেলতে পা
রেখেছে ঢাকায়।
মান বাঁচানোর তাড়া তো
আছেই, সঙ্গে প্রতিপক্ষ পাবে
ঘরের মাঠের সব সুবিধা। এজন্যই
টাইগারদের ওপর তীক্ষ নজর
রেখেছে প্রোটিয়ারা, যার
প্রতিফলন মিলল তাদের টি-২০
অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসিসের
কণ্ঠে।
বুধবার মিরপুরে সংবাদ
মাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে তিনি
অকপটে স্বীকার করে নিলেন
বাংলাদেশের শ্রেষ্ঠত্ব।
বললেন, ‘বিশ্বকাপ থেকেই
তারা ভালো খেলে আসছে।
আমার বিশ্বাস অচিরেই
বাংলাদেশ ক্রিকেট বিশ্বে
একটি বড় দল হিসেবে
বিবেচিত হবে।’
প্লেসিস বলেন,
‘বাংলাদেশকে এখন আর ছোট
দল বলার সুযোগ নেই। তারা
ধীরে ধীরে উন্নতি করছে।
উন্নতির এ ধারাবাহিকতা
ধরে রাখতে পারলে ক্রিকেট
বিশ্বের অন্যতম সেরা দল হতে
তাদের খুব বেশি সময় লাগবে
না।’
তিনি জানান, ‘বাংলাদেশ
পাকিস্তানকে হোয়াইটওয়াশ
করেছে। ভারতকে
হারিয়েছে। ‍সুতরাং
বিমানে ওঠার আগে তাদের
নিয়ে আমাদের অনেক
হোমওয়ার্ক করতে হয়েছে।’
ভারতের বিপক্ষে চার
পেসার নিয়ে খেলেছে
বাংলাদেশ। এ গেম প্লানে
সফল মাশরাফিরা। তবে
প্লেসিস মনে করেন, তাদের
বিপক্ষে এই পথে যাবে না
বাংলাদেশ। তারা স্পিনেই
প্রাধান্য দিয়ে দল সাজাবে।
তিনি স্বীকার করেন,
উপমহাদেশের কন্ডিশনে
তাদের জন্য স্পিন বিশাল
একটা চ্যালেঞ্জ। তবে
আইপিএল খেলায় বেশ
কয়েকজনের কন্ডিশন নিয়ে খুব
একটা সমস্যা হওয়ার কথা নয়।
তবে আইপিএল অভিজ্ঞতা শুরু
টি-টোয়েন্টিতেই কাজে
দেবে বলে জানান প্লেসিস।
বাংলাদেশের বিস্ময়
পেসার মুস্তাফিজুর রহমান
সম্পর্কে প্রোটিয়া অধিনায়ক
বলেন, ‘বর্তমান দলটিতে বেশ
কয়েকজন তরুণ প্রতিভা রয়েছে।
আসলে আমরা নির্দিষ্ট
কাউকে নয়, পুরো দলটা নিয়েই
কাজ করছি। কারণ, এই দলের
যে কোনো একজনই ম্যাচ
ঘুরিয়ে দেওয়ার ক্ষমতা
রাখে।’
বাংলাদেশে তাদের জন্য
চ্যালেঞ্জটা কী? জবাবে ডু
প্লেসিস বলেন, ‘এখানকার
কন্ডিশনই হচ্ছে আমাদের জন্য
বড় চ্যালেঞ্জ। এই কন্ডিশনের
সঙ্গেই আমরা মানিয়ে
নেওয়ার চেষ্টা করছি।’
দুটি টি-২০, তিনটি ওয়ানডে
ও দুটি টেস্ট খেলতে গতকাল
মঙ্গলবার বিকেলে ঢাকায়
পা দিয়েছে দক্ষিণ
আফ্রিকা। এদিন শুধু টি-২০ দল
এসেছে। বাকিরা
পর্যায়ক্রমে আসবেন। আগামী
৫ ও ৭ জুলাই মিরপুরে হবে দুটি
টি-২০।

আপনার ওয়েবসাইট তৈরি করতে ক্লিক করুন........
Ads by জনতার বাণী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

শিরোনামঃ