অসাধারণ এক ডাবলের সামনে সাকিব

সাকিব আল হাসানের মাঠে নামা মানেই নতুন কোনো অর্জনে নাম লেখানো। সাফল্যের মুকুটে যোগ করা নতুন পালক। ব্যক্তিগত অর্জনে সাকিব বরাবরই নিজেকে নিয়ে গেছেন নতুন উচ্চতায়। এবার এমন একটি মাইলফলকের হাতছানি তার সামনে যেখানে তিনি-ই হবেন প্রথম।

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় বিজ্ঞাপণ সাকিব। বিশ্বের প্রায় সবকটি ফ্রাঞ্জাইজি ক্রিকেটে সাকিব টি-টোয়েন্টি ফেরি করে বেড়াচ্ছেন। তবে এবারের অর্জনটা জাতীয় দলের জার্সিতে।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজে ৫ উইকেট পেলে সাকিব প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে এ ফরম্যাটে ১ হাজার রান ও ১০০ উইকেটের ডাবল পূর্ণ করবেন। ৭৯ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে সাকিবের রান ১৬০৪। বল হাতে উইকেট পেয়েছেন ৯৫টি। উইকেট শিকারির তালিকায় সাকিব আছেন শীর্ষ পাঁচে।

১০৭ উইকেট নিয়ে মালিঙ্গা সবার উপরে। এরপর ৯৯ উইকেট নিয়ে টিম সাউদি দুইয়ে। আফ্রিদির উইকেট ৯৮টি। ৯৫ উইকেট নিয়ে রশিদ খান ও সাকিব পাশাপাশি রয়েছে। তবে সাকিবের থেকে ২৮ ম্যাচ কম খেলে রশিদ রয়েছেন চারে।

মিরপুরের চিনচেনা উইকেটে অসাধারণ কীর্তি গড়তে সাকিবের প্রয়োজন মাত্র ৫টি উইকেট। কাজটা খুব কঠিন হবার কথা না তার জন্য।

প্রসঙ্গত, পুরুষ ও নারীদের ক্রিকেট মিলিয়ে টি-টোয়েন্টিতে অসাধারণ এ ডাবলের কীর্তি গড়েছেন অস্ট্রেলিয়ার এলিস পেরি। ২০১৯ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচে ৪৭ রানের ইনিংস খেলার পর এলিট ক্লাবে প্রবেশ করেন পেরি। এর আগে ২০১৮ সালের নভেম্বরে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে নিউ জিল্যান্ডের ন্যাট সেভিয়ারের উইকেট নিয়ে উইকেটের সেঞ্চুরি পূর্ণ করেছিলেন।

%d bloggers like this: