Home > রাজনীতি > মাদকে টালমাটাল ডিজিটাল বাংলাদেশ : এরশাদ

মাদকে টালমাটাল ডিজিটাল বাংলাদেশ : এরশাদ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক :

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন, ঘরে ঘরে চাকরি দেওয়ার কথা শুনেছিলাম কিন্তু সেটা হয়নি। বরং ঘরে ঘরে এখন চলে গেছে ইয়াবা। এখন মাদকের ছোঁবলে ডিজিটাল বাংলাদেশ টালমাটাল।

মে-দিবস উপলক্ষ্যে মঙ্গলবার বিকালে জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে এক শ্রমিক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

এরশাদ বলেন, ‘দেশে সুশাসন নেই। অপরাধীদের বিচার নেই। তাই দেশে ধর্ষণ বেড়ে গেছে। বেড়ে গেছে খুন, গুম, সন্ত্রাস, চাঁদাবাজি আর দলবাজি। দেশটা অধঃপতনে গেছে। খবরের কাগজ খুললেই শুধু হত্যা আর মৃত্যুর সংবাদ চোখে পড়ে। আমরা বাঁচতে চাই; দেশ ও মানুষকে বাঁচাতে চাই। তাই পরিবর্তন প্রয়োজন। আর জাতীয় পার্টি ছাড়া এই পরিবর্তন সম্ভব নয়।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমাদের হাতে আজ কিছু নেই। হাসি নেই, আনন্দ নেই, শান্তি নেই, বাক স্বাধীনতা নেই, গণতন্ত্র নেই, নিরাপত্তা নেই, নাগরিক অধিকার নেই, শ্রমিকের কাজ নেই, কৃষকের খাওয়া নেই, বেকারের বাঁচার পথ নেই, বিচার নেই, আইনের শাসন নেই, শুধু নেই আর নেই। আছে শুধু হাত বাঁধা শৃংখল। এই শৃংখল আজ আমাদের ভাঙতে হবে। এই হোক মহান মে দিবসের অঙ্গীকার।’

শ্রমিকদের খবর কেউ রাখে না মন্তব্য করে প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি বলেন, ‘বেঁচে থাকার তাগিদে শ্রমিকরা ১২ ঘণ্টা কাজ করে কিন্তু কেউ তাদের খবর রাখে না। কাজ শেষে শ্রমিকরা কোথায় থাকে, কীভাবে থাকে কেউ কি খোঁজ রাখে?’

তিনি বলেন, ‘জাতীয় পার্টিই শ্রমিকবান্ধব। আমরা ক্ষমতায় এলে শ্রমিকদের জীবন মান উন্নয়নে সবকিছুই করবো।’

জাতীয় শ্রমিক পার্টির সভাপতি একেএম আসরাফুজ্জামান খানের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, জাতীয় সংসদের বিরোধী দলীয় নেতা বেগম রওশন এরশাদ, কো-চেয়ারম্যান জি এম কাদের, মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার এমপি, প্রেসিডিয়াম সদস্য ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ এমপি, কাজী ফিরোজ রশীদ এমপি, জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু এমপি, সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা এমপি, এস এম ফয়সল চিশতী।

 

সমাবেশে প্রেসিডিয়াম সদস্য সাহিদুর রহমান টেপা, মীর আবদুস সবুর আসুদ, সাইফুদ্দিন আহমেদ মিলন, আজম খান, মেজর খালেদ আখতার (অব.), রিন্টু আনোয়ার, জহিরুল ইসলাম জহির, আরিফুর রহমান খান, আলমগীর সিকদার লোটন, নুরুল ইসলাম নুরু, সরদার শাহজাহান, লিয়াকত হোসেন খোকা এমপি, গোলাম মোহাম্মদ রাজু, মোস্তাকুর রহমান মোস্তাক, শেখ আলমগীর হোসেন, দিদারুল কবির দিদার, জহিরুল আলম রুবেল, আমির উদ্দিন ডালু, ইসহাক ভূইয়া, মোবারক হোসেন আজাদ, নির্মল দাস, হেলাল উদ্দিন, সুলতান মাহমুদ, খোরশেদ আলম খুশু, রাজ্জাক খান, সুমন আশরাফ, সুজন দে, শারমিন পারভীন লিজা, ডা. সেলিমা খান, সৈয়দা পারভীন তারেক, মনোয়ারা তাহের মানু, কাজী আবুল খায়ের, অ্যাড. লাকী আক্তার, ইছারুহুল্লা আসিফ, শ্রমিক পার্টির সাধারণ সম্পাদক মো. জাহাঙ্গীর আলম, আজিজুল ইসলাম, শেখ মোহাম্মদ শান্ত, সৈয়দ ইফতেকার আহসান হাসান, মিজানুর রহমান মিরু উপস্থিত ছিলেন।

জাতীয় মটর শ্রমিক পার্টির র্যা লি: মে দিবস উপলক্ষ্যে জাতীয় মটর শ্রমিক পার্টি রাজধানীতে র্যা লি বের করে।

মঙ্গলবার সকালে র্যা লিটি রাজধানীর গাবতলী এলাকার বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। র্যা লির আগে এলাকার মোহাম্মদীয়া হোটেল প্রাঙ্গণে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন জাতীয় পার্টির মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার এমপি।

সভায় তিনি বলেন, ‘শ্রমিকের ন্যায্য মজুরি প্রদান করা সকলেরই নৈতিক দায়িত্ব ও কর্তব্য। দীর্ঘদিন পেরিয়ে গেলেও শ্রমিকদের প্রত্যাশা পূরণ হয়নি। আজকে শ্রমিকরা হয়তো জানে না জাতীয় পার্টির উন্নয়নের কথা। এই গাবতলী বাস টার্মিনাল, মহাখালী টার্মিনাল, সায়েদাবাদ, জাতীয় পার্টির সরকারের আমলেই করা। গাবতলীর বেরিবাঁধ এরশাদ সরকারের আমলেই হয়েছে।

‘আমরা ক্ষমতায় গেলে শ্রমিকদের প্রত্যাশা পূরণের জন্য একটি ট্রেনিং সেন্টার, চিকিৎসার জন্য হসপিটাল করবো,’ বলেন হাওলাদার।

জাতীয় মটর শ্রমিক পার্টির সভাপতি মোস্তাকুর রহমান মোস্তাকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য সুনীল শুভরায়, ভাইস চেয়ারম্যান আলমগীর সিকদার লোটন, নুরুল ইসলাম নুরু, মটর শ্রমিক পার্টির সাধারণ সম্পাদক মো. মেহেদী হাসান শিপন।

সমাবেশে মটর শ্রমিক পার্টির মাসুম পারভেজ, মোহাম্মদ আলী খান, মোঃ মাহফুজ মোল্লা, মো. কামাল, আলমাজ, সিরাজ, প্রদীপ, তমাল, জিয়াউর রহমান বিপুল, সেলিম রেজা, হুমায়ুন কবির বাবু, আলমগীর হোসেন, আব্দুস সালাম, মোতালেব হোসেন, মাহফুজুর রহমান, খুলিলুর রহমান উপস্থিত ছিলেন।

আপনার ওয়েবসাইট তৈরি করতে ক্লিক করুন........
Ads by জনতার বাণী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

শিরোনামঃ