‘আমি রাঙ্গার মেয়ে, দয়া করে কথাগুলো শুনবেন’

শহীদ নূর হোসেন সম্পর্কে অশালীন মন্তব্য করে আলোচিত জাতীয় পার্টির মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গার মেয়ে মালিহা তাসমিন জুঁইয়ের একটি ভিডিও ফেসবুকসহ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে।

ভিডিওতে তিনি বলেছেন, শহীদ নূর হোসেন সম্পর্কে তার বাবা যে বক্তব্য দিয়েছেন তা মানুষ হিসেবে ভুল করেছেন। এমন কথা বলাটা ঠিক করেননি, খুব খারাপ করেছেন। মানুষ মাত্রই ভুল করে। মানুষ হিসেবে তার বাবাও ভুল করেছেন। মানুষের মনে কষ্ট দিয়েছেন, দুঃখ দিয়েছেন। এমন বক্তব্যের জন্য মেয়ে হিসেবে তার বাবা রাঙ্গার পক্ষ থেকে তিনি ভিডিওতে দেশবাসী, নূর হোসেন ও তার পরিবারের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন।

ফেসবুক লাইভে এসে মালিহা তাসমিন জুঁই বলেন, ‘আসসালামু আলাইকুম। আমি মালিহা তাসমিন জুঁই মসিউর রহমান রাঙ্গা সাহেবের মেয়ে। আমি আপনাদের সঙ্গে একটু কথা বলতে এসেছি। জানি আপনারা আমার বাবার ওপর রাগ করেছেন। আমার ওপরও রাগ করবেন, কারণ আমি ওনার মেয়ে। আমি আপনাদের কাছ থেকে ৫ থেকে ১০ মিনিট সময় নেব। দয়া করে আমার কথাগুলো একটু শুনবেন। একটু ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখবেন। বুঝার জন্য একটু চেষ্টা করবেন। আমি বলতে আসিনি যে আমার বাবা যা বলেছেন সেটা সঠিক। আমার বাবা যেটা বলেছেন সেটা খারাপ বলেছেন। সেটি কষ্টদায়ক বিষয়। আমি ওনার মেয়ে হিসেবে দেশবাসী, নূর হোসেন ও তার পরিবারের কাছে হাতজোর করে ক্ষমা চাচ্ছি।

ফেসবুক লাইভে তিনি বলেন, মানুষ আসলে রাগের বসে অনেক কিছু করে থাকেন। একজনের রাগ অন্যজনের ওপর ঝাড়েন। এটা অনেক সময় হয়। আসলে শনিবার রাতে একটি বিষয় নিয়ে বাবার সঙ্গে আমার একটু ঝামেলা হয়। বাবা আমাকে অনেক ভালোবাসেন। অনেক আদর করেন। এরপরও ওই দিন রাতে ছোট একটি বিষয় নিয়ে বাবার সঙ্গে আমার রাগারাগি হয়। বিষয়টি নিয়ে আমাকে বকাঝকা করেন বাবা। এ নিয়ে ওইদিন রাতের খাবার না খেয়ে ঘুমিয়ে পড়েন তিনি। পরদিন রোববার সকালে ঘরের কাউকে কিছু না বলে এমনকি, নাস্তা না করে বাইরে চলে যান। পরে আমি বুঝতে পারলাম আমার ওপর অনেক রাগ করেছেন বাবা।

তিনে বলেন, এরই মধ্যে ওই দিন সকালে পার্টি অফিসে গিয়ে নেতাকর্মীর কাছে বাবা শুনতে পান গণতন্ত্র দিবসে কিছু লোক বলেছেন, ‘এরশাদের দুই গালে জুতা মারো তালে তালে’। সাবেক রাষ্ট্রপতি ও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান মরহুম এইচএম এরশাদ সম্পর্কে এসব কথাবার্তা শোনার পর বাবার মাথা ঠিক ছিল না। বিষয়টি স্বাভাবিকভাবে নিতে পারেননি তিনি। কারণ এরশাদকে নিজের বাবার মতো জানেন আমার বাবা। এজন্য প্রতিক্রিয়া জানতে গিয়ে নূর হোসেনকে নিয়ে এমন আপত্তিকর মন্তব্য করে বসেন বাবা। বাবার বিষয়টি আপনারা ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখবেন, বাবার হয়ে আমি সবার কাছে ক্ষমা চাই।

%d bloggers like this: