Home > জাতীয় > বাড়ছে রাত: সাইক্লোন শেল্টারে আসছে মানুষ

বাড়ছে রাত: সাইক্লোন শেল্টারে আসছে মানুষ

রাত বাড়ছে যত পিরোজপুরের মানুষের মধ্যে ‘বুলবুল’ আতঙ্ক বাড়ছে তত। থেমে থেমে চলছে বাতাস, বৃষ্টি। সেই সাথে বাড়ছে পানির পরিমান। রাস্তাঘাটে মানুষের উপস্থিতি নেই বললেই চলে। বিরাজ করছে থমথমে অবস্থা।

দিনে বেলায় সাইক্লোন শেল্টারগুলো প্রস্তুত থাকলেও ছিল না আশ্রয় প্রত্যাশীরা। রাত বাড়ার সাথে সাথে পিরোজপুর সদর, মঠবাড়িয়া, ইন্দুরকানীর বিভিন্ন সাইক্লোন শেল্টারে আশ্রয় নিয়েছেন আশ্রয় প্রত্যাশীরা।

পিরোজপুরে ঘুর্নিঝড় ‘বুলবুল’ মোকাবেলায় জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ২২৮ টি সাইক্লোন শেল্টার রয়েছে। এসব আশ্রয় কেন্দ্রে এখন পর্যন্ত আশ্রয় নিয়েছে ৯০ হাজারের বেশি মানুষ। আশ্রয়কেন্দ্র গুলোর ১ লক্ষ ৭৩ হাজার মানুষের ধারণ ক্ষমতা রয়েছে।

পিরোজপুরের সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা মঠবাড়িয়া উপজেলার মাঝের চড়ে। সেখানে লোকজন সাইক্লোন শেল্টারে আশ্রয় নিয়েছে। এসব সাইক্লোন শেল্টারে স্থানীয় প্রশাসন পৌছে দিয়েছে চিড়া, গুড়, মুড়িসহ অন্যান্য শুকনো খাবার। রাখা হয়েছে পর্যাপ্ত পরিমানে সুপেয় পানির ব্যবস্থা। পানি শোধনের জন্য পিরোজপুরের বিভিন্ন উপজেলায় দেয়া হয়েছে ৫০,০০০ পানি শোধন ট্যাবলেট। তাছাড়া জেলা প্রশাসন প্রতিটি উপজেলায় একটি করে কন্ট্রোলরুম খুলেছে। জরুরী সেবার জন্য ফায়ার সার্ভিস রেসকিউ টিম, দুর্যোগ আক্রান্ত মানুষের স্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে ১৬৯ টি মেডিকেল টিম রাখা হয়েছে।

জেলা পুলিশ দুর্যোগ প্রবণ এলাকাগুলো থেকে পুলিশের ব্যবহৃত গাড়িতে করে লোকজনদের নেয়া হচ্ছে আশ্রয়কেন্দ্রে। তাছাড়া যেসব এলাকার মানুষজন আশ্রয় কেন্দ্রে যাচ্ছে তাদের বাড়িঘরের নিরাপত্তার জন্য পুলিশী টহল জোরদার করা হয়েছে। আশ্রয় কেন্দ্রে নারীদের নিরাপত্তার জন্য দেয়া হয়েছে পুলিশ। ইতিমধ্যে পিরোজপুরের জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার বিভিন্ন আশ্রয়কেন্দ্র পরিদর্শন করেছেন।

আপনার ওয়েবসাইট তৈরি করতে ক্লিক করুন........
Ads by জনতার বাণী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

শিরোনামঃ