Home > জাতীয় > দুর্নীতিমুক্ত সমাজ গঠনের প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে: প্রধানমন্ত্রী

দুর্নীতিমুক্ত সমাজ গঠনের প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে: প্রধানমন্ত্রী

সংসদ প্রতিবেদক:

দুর্নীতিমুক্ত সমাজ গঠনের প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছেন সংসদ নেতা ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

তিনি বলেছেন, ‘আমাদের একটা সমস্যা দুর্নীতি। অবৈধভাবে ক্ষমতা দখলকারীরা সব সময়ই নিজেরা দুর্নীতির আশ্রয় নেয় আর সমাজে দুর্নীতিটাকে তারা ছড়িয়ে দেয় ব্যাধির মতো। দুর্নীতির বিরুদ্ধে আমার নীতি হচ্ছে জিরো টলোরেন্স। আমি সব সময় বলেছি, জোর দিয়ে বলেছি, দুর্নীতিমুক্ত সমাজ গঠনে আমাদের প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে।’

শনিবার সংসদে ২০১৯-২০ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটের ওপর আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এ কথা বলেন।

অর্থনৈতিক উন্নয়নের জন্য নেওয়া নানা পদক্ষেপের কথা তুলে ধরে শেখ হাসিনা বলেন, ‘আর্থিক ক্ষেত্রে সার্বিক শৃঙ্খলা আনার জন্য বাজেটে কিছু সুনির্দিষ্ট কার্যক্রমের কথা উল্লেখ করা হয়েছে।’

তিনি আরো বলেন, ‘খেলাপি ঋণ হ্রাসের জন্য অর্থমন্ত্রী যে উদ্যোগের ঘোষণা দিয়েছেন তা অত্যন্ত সময় উপযোগী। পাশাপাশি আমার সুপারিশ থাকবে যেন ব্যাংক ঋণের উপর সুদের হার এক অংকের মধ্যে রাখা হয় অর্থাৎ সিঙ্গেল ডিজিট। এটি করা গেলে শিল্প ও ব্যবসা খাতকে প্রতিযোগিতা সক্ষম করে গড়ে তোলা সম্ভব হবে। কারণ, উচ্চ হারে সুদ থাকলে কোনো ইন্ডাস্ট্রি বিকশিত হবে না।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘একটি সমৃদ্ধ অর্থনীতির জন্য প্রয়োজন বিকশিত একটি পুঁজিবাজার। এই বাজেটে পুঁজিবাজারের জন্য অনেক প্রণোদনা থাকছে। এইসব প্রস্তাব বাস্তবায়নের মাধ্যমে পুঁজিবাজারের সম্প্রসারণ হবে। এভাবে পুঁজিবাজার তার কাঙ্ক্ষিত ভূমিকা পালনে সক্ষম হবে বলে আমি আশা করি।’

সংসদ নেতা  বলেন, ‘এক সময় বাজেটের সিংহভাগ বৈদেশিক অনুদান নির্ভর ছিল। ২০০৯ সালের পর থেকে অত্যন্ত দক্ষতার সাথে বাজেট প্রণয়ন করে মানুষের আয় বর্ধন ও দেশের সার্বিক অর্থনৈতিক উন্নতি করতে পেরেছি বলেই আজকে ২০১৯-২০ অর্থবছরে বৈদেশিক অনুদান মাত্র দশমিক আট শতাংশ। উন্নয়ন বাজেটের ৯০ ভাগই নিজস্ব অর্থায়নে বাস্তবায়ন করতে পারি। পরনির্ভরশীলতা কমিয়ে আত্মনির্ভরশীল, আত্মমর্যাদাশীল হয়েছি। বাজেটে প্রতিটি মানুষ উপকৃত হবে।’

আপনার ওয়েবসাইট তৈরি করতে ক্লিক করুন........
Ads by জনতার বাণী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

শিরোনামঃ