Home > জাতীয় > কারা হচ্ছেন নতুন মন্ত্রী, আলোচনা তুঙ্গে

কারা হচ্ছেন নতুন মন্ত্রী, আলোচনা তুঙ্গে

নিউজ ডেস্ক
জনতার বাণী,
ঢাকা: আওয়ামী লীগ
নেতৃত্বাধীন সরকারের
মন্ত্রিসভায় নতুন সদস্য যুক্ত করা
হচ্ছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যা ছয়টায়
নতুন সদস্যদের বঙ্গভবনে শপথ
দেয়া হবে।
রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ
মন্ত্রিসভার নতুন সদস্যদের শপথ
পড়াবেন। তার দৈনন্দিন
কর্মসূচিতে সন্ধ্যা ছয়টায়
বঙ্গভবনের দরবার হলে এই শপথ
অনুষ্ঠানের সূচি রয়েছে।
এছাড়া পুরনো মন্ত্রীদের
কারো কারো দপ্তর বদল হতে
পারে। মন্ত্রিপরিষদ
বিভাগের একটি সূত্র বলছে,
পাঁচ থেকে ছয়জন নতুন সদস্য
যোগ হতে পারেন
মন্ত্রিসভায়।
মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের
চাহিদা অনুযায়ী ইতোমধ্যে
মন্ত্রিসভার নতুন সদস্যদের জন্য
গাড়ি প্রস্তুত করে সচিবালয়ে
পাঠিয়েছে পরিবহন পুল।
মঙ্গলবার সকালে পাঁচটি
কালো রঙের প্রোটন গাড়ি
মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের
সামনে এনে রাখা হয়।
প্রতিটি গাড়ির সামনেই
সাদা কভারে ঢাকা
পতাকার দণ্ড দেখা গেছে।
মন্ত্রিসভার অন্য সদস্যরাও একই
ধরনের গাড়ি ব্যবহার করেন।
প্রতিটি গাড়ির সামনে
দেখা যায় ক্রমিক নম্বর
দেওয়া।
সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা
চালকদের নাম ও ফোন নম্বর
সংগ্রহ করেছেন। তবে কাকে
কোথায় যেতে হবে সে
নির্দেশনা এখনো দেওয়া
হয়নি বলে জানা গেছে।
বর্তমানে মন্ত্রিসভায় ডাক ও
টেলিযোগাযোগমন্ত্রী নেই।
হজ, নবী ও তাবলিগ জামাত
নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য
গত বছরের ১২ অক্টোবর আবদুল
লতিফ সিদ্দিকী ডাক ও
টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়
থেকে অপসারিত হন।
সম্প্রতি স্থানীয় সরকার
মন্ত্রণালয় থেকে সৈয়দ
আশরাফুল ইসলামকে সরানোর
পর এই মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে
রয়েছেন ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার
মোশাররফ হোসেন। একই সঙ্গে
তিনি বৈদেশিক কর্মসংস্থান
ও প্রবাসী কল্যাণ
মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে
রয়েছেন।
এছাড়া স্বরাষ্ট্র, তথ্য ও
যোগাযোগ প্রযুক্তি
মন্ত্রণালয়ে পূর্ণ মন্ত্রী নেই।
ফলে এসব জায়গায় ঘুরেফিরে
বেশ কয়েকটি নাম আলোচনায়
আসছে, তারা হলেন- প্রবাসী
কল্যাণ মন্ত্রণালয়ে নুরুল ইসলাম
বিএসসি, ডাক ও
টেলিযোগাযোগ
মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী পদে
তারানা হালিম, সমাজ
কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী পদে
লালমনিরহাটের এমপি
নুরুজ্জামান আহমেদ।
পূর্ণ মন্ত্রী হতে পারেন
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান
খান কামাল এবং বিজ্ঞান ও
প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী স্থপতি
ইয়াফেস ওসমান।
২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি
বিতর্কিত নির্বাচনের
মাধ্যমে দ্বিতীয়বার ক্ষমতায়
আসে আওয়ামী লীগ
নেতৃত্বাধীন জোট। এরপর ওই
বছরের ১২ জানুয়ারি
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার
নেতৃত্বে নতুন মন্ত্রিসভা শপথ
নেয়।
একই বছরের ২৬ ফেব্রুয়ারি
প্রধানমন্ত্রী আরেক দফা তার
মন্ত্রিসভা সম্প্রসারণ করেন।
সে সময় আবুল হাসান মাহমুদ
আলীকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়
এবং নজরুল ইসলামকে
পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের
প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব দেওয়া
হয়। এরপর গত দেড় বছরে আর
কোনো রদবদল আনেননি
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
বর্তমান মন্ত্রিসভায় ২৯ জন
মন্ত্রী, মন্ত্রীর পদমর্যাদায়
প্রধানমন্ত্রীর একজন বিশেষ দূত
ও পাঁচজন উপদেষ্টা, ১৮ জন
প্রতিমন্ত্রী এবং দুইজন
উপমন্ত্রী রয়েছেন।

আপনার ওয়েবসাইট তৈরি করতে ক্লিক করুন........
Ads by জনতার বাণী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

শিরোনামঃ