Home > জাতীয় > ‘কেল্লায় না আসলে ঈদ উদযাপনই হয় না’

‘কেল্লায় না আসলে ঈদ উদযাপনই হয় না’

নিজস্ব প্রতিবেদক :

পুরান ঢাকার ঐতিহ্য বা বিনোদনকেন্দ্রগুলোর অন্যতম লালবাগ কেল্লা। এ কেল্লার নয়নাভিরাম দৃশ্য উপভোগ করতে সেখানে ঈদের দ্বিতীয় দিন রোববার বিনোদনপ্রেমীদের ঢল নেমেছে। অনেকে সপরিবারে এসেছেন লালবাগ কেল্লায়।

রাজধানীর বংশাল থেকে আসা রাশেদুল হক বলেন, ‘স্ত্রী ও দুই সন্তানকে নিয়ে এসেছি। ভেতরে মোঘল আমলের অনেক কিছু দেখেছি। সন্তানরা খুব মজা করছে। আর এখানের ফুলের বাগান তথা প্রাকৃতিক দৃশ্য উপভোগ করতে না পারলে মনেই হয় না যে ঈদ করেছি। তাই প্রতিবারই আসি।’

সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী সোমা আক্তার বলে, ‘সব ঈদেই আসি। কেল্লার স্থাপনা, মোঘল আমলের বিভিন্ন জিনিস যতই দেখি ততই দেখতে ইচ্ছে করে।’এখান থেকে অনেক কিছু শেখার আছে বলে মনে করেন সোমা আক্তারের বাবা ফেরদৌস হাসান।

মিরপুর থেকে রোববার সকালে লালবাগ কেল্লায় ঘুরতে আসেন মোশাররফ-সুরাইয়া দম্পতি। সুরাইয়া বলেন, ‘বিয়ের আগে থেকেই এখানে আসতাম। খুব ভালো লাগে। ঈদে এখানে আসার জন্য মুখিয়ে থাকি।’

পুরো লালবাগ কেল্লার বিভিন্ন জায়গায় নানা বয়সের মানুষ ঘুরে ঘুরে দেখছেন। আবার অনেকেই মাঠের মধ্যে আড্ডায় মেতে উঠেছেন। টিকিট কাউন্টারের সামনে দীর্ঘ লাইন। বাবা-মার সঙ্গে আসা শিশুদের আনন্দের যেন শেষ ছিল না।

কেল্লার তত্ত্বাবধায়ক মো. মশিউর রহমান বকুল বলেন, ‘ঈদের দ্বিতীয় দিন হওয়ায় অনেক দর্শনার্থীর সমাগম ঘটেছে। অবশ্য ঈদের সময় দর্শনার্থী একটু বেশিই হয়। এখানে সব শ্রেণির মানুষ আসে অজানাকে জানতে।’

মোঘল আমলে নির্মিত প্রাচীন এই কেল্লায় শায়েস্তা খানের আমলের পোশাক পরিচ্ছদ, মোঘল আমলে যুদ্ধে ব্যবহৃত অস্ত্র, গোলাবারুদ, পরীবিবির মাজারসহ অসংখ্য নির্দশন রয়েছে।

আপনার ওয়েবসাইট তৈরি করতে ক্লিক করুন........
Ads by জনতার বাণী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

শিরোনামঃ