সাহারা খাতুনের মৃত্যুতে মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রীদের শোক

বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী অ্যাডভোকেট সাহারা খাতুনের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন অনেক মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রী। তারা শোক-সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানান।

বৃহস্পতিবার (৯ জুলাই) দিবাগত রাতে থাইল্যান্ডের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সাহারা খাতুনের মৃত্যু হয়।

এক শোক বার্তায় অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেন, সাহারা খাতুন মানুষের অধিকার আদায়ের সংগ্রামে আজীবন কাজ করে গেছেন এবং আওয়ামীলীগের দুঃসময়ে নেতাকর্মীদের পাশে থেকে আইনিসহ সব সাহায্য-সহযোগিতা করেছেন।

অর্থমন্ত্রী মরহুমার রুহের মাগফিরাত কামনা করেন।

সাহারা খাতুনের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। শোক বার্তায় তিনি বলেন, তার মৃত্যুতে দেশ ও জাতি একজন দক্ষ ও সৎ নারী নেত্রীকে হারালো।

বাণিজ্যমন্ত্রী মরহুমার রুহের মাগফিরাত কামনা করেন এবং তার শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানান।

এক শোক বার্তায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেন, সাহারা খাতুন সারা জীবন ছিলেন সাধারণ মানুষের জন্য নিবেদিতপ্রাণ। তার মৃত্যুতে জাতি একজন বিশিষ্ট রাজনীতিককে হারালো।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী মরহুমার শোকসন্তপ্ত পরিবার ও রাজনৈতিক অনুসারীদের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।

সাহারা খাতুন এমপির বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান। মন্ত্রী বলেন, সাহারা খাতুন আমৃত্যু সততা ও ন্যায়-নিষ্ঠার সঙ্গে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ প্রতিষ্ঠায় কাজ করে গেছেন।

গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল।

সাহারা খাতুনকে কল্যাণমূলক রাজনীতির অগ্রদূত আখ্যায়িত করে প্রতিমন্ত্রী বলেন, তিনি জাতির পিতার নির্দেশিত পথে গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠা ও অধিকার বঞ্চিত মানুষের অধিকার আদায়ের সংগ্রামে আজীবন কাজ করে গেছেন। দলের দুঃসময়ে তিনি সবসময় সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়েছেন।

তিনি মরহুমার বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন।

%d bloggers like this: