জনমুখী তথ্যপ্রচারে ‘নিউ মিডিয়া’ ব্যবহারে গুরুত্বারোপ তথ্যসচিবের

জনমুখী এবং সরকারের উন্নয়ন কর্মকাণ্ডের তথ্য দ্রুত এবং কার্যকরভাবে জনগণের কাছে পৌঁছাতে ‘নিউ মিডিয়া’ বা ইন্টারনেটভিত্তিক ডিজিটাল মাধ্যম ব্যবহারের ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন তথ্যসচিব কামরুন নাহার।

বৃহস্পতিবার (১৯ নভেম্বর) দুপুরে সচিবালয়ে তথ্য অধিদফতর সম্মেলন কক্ষে ‘সরকারের উন্নয়ন কার্যক্রম প্রচার কৌশল’ শীর্ষক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি সব মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগের দায়িত্বে থাকা কর্মকর্তাদের এ নির্দেশনা দেন।

প্রধান তথ্য অফিসার সুরথ কুমার সরকারের সভাপতিত্বে তথ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত প্রধান তথ্য অফিসার মো. শাহেনুর মিয়া, সিনিয়র উপপ্রধান তথ্য অফিসার মুহ. সাইফুল্লাহ প্রমুখ সভায় বক্তব্য রাখেন।

তথ্যসচিব বলেন, আমাদের দেশ এখন ডিজিটাল বাংলাদেশ। মন্ত্রণালয়গুলোর জনসংযোগের কাজে নিয়োজিত কর্মকর্তাদের ওপর অর্পিত দায়িত্ব দক্ষতার সঙ্গে পালনের ক্ষেত্রে গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ অন্যান্য ডিজিটাল প্লাটফর্ম ব্যবহারের বিকল্প নেই।

শুধু প্রেস রিলিজ বা হ্যান্ডআউট ই-মেইল বা ফ্যাক্স করলেই হবে না, জনগণের কাছে তথ্য পৌঁছাতে ব্যবহার করতে হবে ৩৬০ ডিগ্রি পদ্ধতি, আর এজন্য প্রয়োজন আন্তরিকতা ও যুগোপযোগী প্রশিক্ষণ, বলেন সচিব।

কামরুন নাহার বলেন, ‘দক্ষ জনসংযোগের জন্য কর্মকর্তাদের নিজ কর্মক্ষেত্রের বিষয়ভিত্তিক জ্ঞান ও সম্যক ধারণা অর্জন একান্ত জরুরি। আমরা এজন্য নিয়মিত প্রশিক্ষণের আয়োজন করছি। সেই সঙ্গে মন্ত্রণালয়গুলোতে জনসংযোগ শাখার সক্ষমতা বাড়াতে ‘জনসংযোগ সেল’ এবং জনমুখী প্রচারের কেন্দ্র হিসেবে তথ্য অধিদফতরে অডিও-ভিজ্যুয়াল শাখা গড়ে তোলারও পরিকল্পনা রয়েছে।’

প্রধান তথ্য অফিসার সুরথ কুমার সরকার তার বক্তৃতায় জানান, জনসাধারণের কাছে তথ্য পৌঁছার আধুনিক কার্যকর পদ্ধতি হিসেবে ‘সিটিজেন জার্নালিজম’ বিষয়ে শিগগিরই জনসংযোগ কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সভাশেষে তথ্যসচিব কামরুন নাহারকে তথ্য মন্ত্রণালয়ের কর্মকাণ্ডের আলোকচিত্রের একটি স্মারক অ‌্যালবাম হস্তান্তর করেন প্রধান তথ্য অফিসার।

%d bloggers like this: