বিতর্কিত সিনেমায় কাজ করতে চাই না: পূজা

ঢাকাই চলচ্চিত্রের বর্তমান সময়ের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা পূজা চেরি। স্বল্প সময়ের ক্যারিয়ারে দর্শকের প্রশংসা কুড়িয়েছেন তিনি। নিজের ক্যারিয়ারে কখনো কালিমা লাগাতে চান না পূজা। তাইতো বিতর্কিত কোনো চলচ্চিত্রেও কাজ করতে নারাজ এই অভিনেত্রী।

রাইজিংবিডির সঙ্গে আলাপকালে পূজা বলেন—বিতর্কিত কোনো সিনেমায় কাজ করতে চাই না।

চলতি বছরে সরকারি অনুদান পেয়েছে ‘হৃদিতা’ সিনেমা। এমএন ইস্পাহানির প্রযোজনায় এটি পরিচালনা করছেন আরিফ জাহান। এতে চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন এবিএম সুমন ও পূজা চেরি।

এদিকে অনিয়ম এবং অনুদানের শর্ত ও নীতিমালা লঙ্ঘনের অভিযোগে ৭২ ঘণ্টার মধ্যে ‘হৃদিতা’ সিনেমার অনুদান বাতিল ও শুটিংসহ সব ধরনের কার্যক্রম স্থগিতের জন্য তথ্য সচিব এবং ‘হৃদিতা’ সিনেমার ‘তথাকথিত’ প্রযোজকসহ ৯ জনকে আইনি নোটিশ পাঠানো হয়েছে। মিজানুর রহমানের পক্ষে আইনি নোটিশ পাঠিয়েছেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী আফতাব উদ্দিন ছিদ্দিকী।

গত ২৪ সেপ্টেম্বর রেজিস্ট্রি ডাকযোগে ও ২৭ সেপ্টেম্বর ই-মেইলে পাঠানো হয় ওই নোটিশ। ‘হৃদিতা’ সিনেমার জন্য ছাড়কৃত অনুদান ফেরত এবং অনুদানের মতো সরকারের মহতী উদ্যোগকে প্রশ্নবিদ্ধ করার অভিযোগে দৃষ্টান্তমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের অনুরোধ জানানো হয়েছে।

চিত্রনায়িকা পূজা তার এ চলচ্চিত্র নিয়ে কী ভাবছেন? জবাবে পূজা চেরি বলেন—‘হৃদিতা’ নিয়ে এই মুহূর্তে কোনো কথা বলতে চাই না। জটিলতা কাটিয়ে উঠুক এরপর সিনেমাটি নিয়ে কথা বলা যাবে। তবে শুধু ‘হৃদিতা’ নয়, বিতর্কিত কোনো সিনেমায় কাজ করতে চাই না। আমরা শিল্পী কাজ করবো, কেন বিতর্কে জড়াবো?

২০১৯ সালে পরিচালক ইস্পাহানি আরিফ জাহান ‘ড্রিমগার্ল’ নামে সিনেমা নির্মাণ করার ঘোষণা দেন। দেশের প্রায় সব গণমাধ্যমে প্রকাশ হয় আনিসুল হকের ‘হৃদিতা’ উপন্যাস অবলম্বনে সিনেমাটি নির্মিত হচ্ছে। আর এতে জুটি বেঁধে অভিনয় করবেন রোশান ও অধরা খান।

%d bloggers like this: