Home > আন্তর্জাতিক > ভারতের সাবেক বিমানবাহিনী প্রধান ১০ দিনের রিমান্ডে

ভারতের সাবেক বিমানবাহিনী প্রধান ১০ দিনের রিমান্ডে

অবশেষে অগস্টা ওয়েস্টল্যান্ড চপার দুর্নীতিকাণ্ডে গ্রেপ্তার করা হলো ভারতের সাবেক বিমানবাহিনী প্রধান এস পি ত্যাগীকে। শুক্রবার তাকে গ্রেপ্তার করে দেশটির কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা। শনিবার, পাতিয়ালা হাউজের ম্যাজিস্ট্রিয়াল আদালতে তোলা হয় ধৃত সাবেক বিমানবাহিনী প্রধানকে। সেখানে ১০ দিনের পুলিশি হেফাজতে তাকে রাখা নির্দেশ দেয় আদালত। ত্যাগী ছাড়াও অভিযুক্ত তার ভাই সঞ্জীব ত্যাগী ও দিল্লির এক আইনজীবী গৌতম খৈতানকেও ১০ দিনের পুলিশি হেফাজতে রাখার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

মে মাসে চপার দুর্নীতিতে সাবেক বিমানবাহিনী প্রধানকে জিজ্ঞাসা করেছিল সিবিআই। মোট দু’বারের জিজ্ঞাসার পর এবার গ্রেপ্তার করা হয় এস পি ত্যাগীকে। ধৃতদের প্রত্যেকের বিরুদ্ধেই অনৈতিক কাজে প্রভাব খাটানো ও ঘুষ নেয়ার অভিযোগ রয়েছে।

উল্লেখ্য, ত্যাগী ছাড়াও এই ঘটনায় মোট ১৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে সিবিআই।

একনজরে অগস্টা ওয়েস্টল্যান্ড দুর্নীতি :

* রাষ্ট্রপতি, উপরাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রসহ ভিভিআইপিদের সুরক্ষার জন্য ১২টি এডব্লিউ ১০১ চপার কেনার সিদ্ধান্ত।

* সেই মতো অগস্টা ওয়েস্টল্যান্ড সংস্থার সঙ্গে ৩৬০০ কোটি টাকার চুক্তি ভারত সরকারের।

* ইটালীয় সংস্থা ফিনমেকানিকার ব্রিটিশ শাখা সংস্থা হলো অগস্টা ওয়েস্টল্যান্ড।

* অভিযোগ, এই চুক্তির বরাত পাওয়ার জন্য অগস্টা ওয়েস্টল্যান্ডের পক্ষ থেকে ভারতের বেশ কয়েকজন রাজনৈতিক নেতা, আমলা ও তৎকালীন বিমানবাহিনী প্রধানকে ঘুষ দিয়েছিল।

* একই অপরাধে ২০১৩ সালে সংশ্লিষ্ট সংস্থার সিইও-কে দোষীসাব্যস্ত করে ইটালির মিলান আদালত।

* ইটালির আদালতের ২২৫ পাতার রায়ে উঠে আসে ভারতের তাবড় তাবড় রাজনৈতির ব্যক্তিত্বদের নাম। এর মধ্যে চারবার উঠেছিল সোনিয়া গান্ধীর নাম।

* রিপোর্টে ছিল প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং, কংগ্রেস নেতা অস্কার ফার্নান্ডেজ, তৎকালীন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা এম কে নারায়ণনের নামও।

* এ ছাড়াও বিমানবাহিনী কর্মকর্তা এস পি ত্যাগী এবং তার তিন ভাই – সঞ্জীব, সন্দীপ ও রাজীব ত্যাগীর বিরুদ্ধেও ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ ওঠে।

* অভিযোগ ছিল, চুক্তির বরাদ পাইয়ে দিতে মোট ২২৫ কোটি টাকার ঘুষ দেয়া হয়েছিল।

* পার্লামেন্টে অগস্টা দুর্নীতির কথা মেনে নেন সাবেক প্রতিরক্ষামন্ত্রী এ কে অ্যান্টোনি।

আপনার ওয়েবসাইট তৈরি করতে ক্লিক করুন........
Ads by জনতার বাণী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

শিরোনামঃ