সৌদি যুদ্ধজাহাজে হামলা, দুই নাবিক নিহত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ইয়েমেন উপকূলে টহলে থাকা একটি সৌদি যুদ্ধজাহাজে হুতি বিদ্রোহীদের হামলায় সৌদি আরবের দুই নাবিক নিহত হয়েছেন।

সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা এসপিএ জানিয়েছে, সোমবার তিনটি ‘আত্মঘাতী বোট’ নিয়ে যুদ্ধজাহাজে হামলা চালায় ইমেয়েনের সরকারবিরোধী বিদ্রোহী গোষ্ঠী হুতিরা। একটি বোট যুদ্ধজাহাজের সঙ্গে ধাক্কা খাওয়ালে বোটটি বিস্ফোরিত হয় এবং যুদ্ধজাহাজও ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এ সময় দুজন সৌদি নাবিক নিহত এবং তিনজন নাবিক আহত হন।

এসপিএর খবরে আরো বলা হয়েছে, বিস্ফোরণে ক্ষতিগ্রস্ত জাহাজটি কিছু সময়ের মধ্যে সচল করতে সক্ষম হয় সৌদি নাবিকরা। সেটি আবার টহলে নিয়োজিত হয়েছে।

ইয়েমেন উপকূলে নিয়মিত টহল দেয় সৌদি যুদ্ধজাহাজ। সৌদি আরবের নেতৃত্বাধীন সামরিক জোটের অধীনে পরিচালিত যুদ্ধজাহাজের নিরাপত্তায় বিমানবাহিনী কাজ করে।

এই সামরিক জোটের এক বিবৃতিতে হামলার বিষয়ে বলা হয়, হোদেইদা বন্দরের পশ্চিম উপকূলে সোমবার যুদ্ধজাহাজে হামলা চালায় হুতিরা।

এদিকে, মঙ্গলবার হুতি বিদ্রোহীরা দাবি করেছে, ইমেয়েন ও ইরিত্রিয়ার মধ্যবর্তী লোহিতসাগরের জুকার দ্বীপে সৌদি নেতৃত্বাধীন সামরিক জোটের ঘাঁটিতে বিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে তারা। তবে এ বিষয়ে তাৎক্ষণিক কোনো প্রতিক্রিয়া জানায়নি সামরিক জোট।

ইয়েমেনে সুন্নি ও শিয়া আধিপত্যকে কেন্দ্র করে গৃহযুদ্ধ চলছে। এ যুদ্ধের একদিকে আছে প্রেসিডেন্ট আব্দ রাব্বু মানুসর হাদির সুন্নিপ্রধান সরকার এবং অন্যদিকে আছে শিয়াপ্রধান হুতি সম্প্রদায়। ইয়েমেনের রাজধানী সানা হুতিরা দখল করে নেওয়ার পর গৃহযুদ্ধ ভয়াবহভাবে ছড়িয়ে পড়ে। বন্দর শহর এডেনকে অস্থায়ী রাজধানী ঘোষণা করে কাজ চালিয়ে যাচ্ছে আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত হাদি সরকার। সৌদি আরবের নেতৃত্বাধীন সুন্নি অধ্যুষিত দেশগুলো হাদি সরকারের পক্ষে হুতিদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করছে।

%d bloggers like this: